সোমবার, ২২শে জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

আট বছরের শরীরে বন্দি ২২ বছরের তরুণীর জীবন

মিশিগান প্রতিদিন ডেস্কঃ শিশু অবস্থায় শনা রের  মস্তিষ্কে ক্যান্সার ধরা পড়ে। সেই কর্কট রোগ থেকে সেরে ওঠার পর তাঁর আর শারীরিক বৃদ্ধি ঘটেনি, কিন্তু বয়স বেড়েছে। এখন ২২ বছরের প্রাপ্তবয়স্ক মেয়েটি আটকে আছেন সেই আট বছরের ‘শিশু শরীরে’।

মাত্র ছয় মাস বয়সে শনা রে’র ক্যান্সার ধরা পড়ে। কেমোথেরাপির মাধ্যমে তাঁর জীবন বাঁচানো যায়; কিন্তু ধারণা করা হচ্ছে- থেরাপির খারাপ প্রভাব পড়ে তাঁর পিটুইটারি গ্রন্থির ওপর। ক্ষতিগ্রস্ত হয় সেটি। ফলে আর স্বাভাবিকভাবে বেড়ে ওঠা হয়নি শনার।

কেমোথেরাপিই তাঁর পিটুইটারির এ ক্ষতি করেছে, এমন কোনো শক্ত প্রমাণ কিন্তু চিকিৎসকদের কাছে নেই। তবে ক্যান্সার চিকিৎসার ক্ষেত্রে এ ধরনের জটিলতা হতে পারে বলে জানান তাঁরা।

সম্প্রতি তাঁকে নিয়ে টিএলসি নির্মাণ করেছে একটি ডকুমেন্টারি। শিরোনাম ‘আই অ্যাম শনা রে’। তিনি নিজেই এটিতে নিজের চরিত্রে অভিনয় করেছেন। তিনি তাঁর সমস্যাগুলো কাটিয়ে উঠতে পেরেছেন বলে মনে করেন। শিশুর মতো দেখতে শনা একজন প্রাপ্তবয়স্কের মতো আচরণ করতে চান।

শনা ব্যাখ্যা করেন, ‘আপনি আমার দিকে তাকালে ভাববেন আমি একটি সাধারণ মেয়ে। একটি সাধারণ মেয়ের মতো আমি আমার পরিবারের সঙ্গে মজা করি, দুষ্টুমি করি। কিন্তু সত্যি বলছি, আমি মেয়ে নই। আমি একজন নারী, ২২ বছর বয়সী একজন নারী, যে আট বছরের একটি মেয়ের শরীরে আটকা পড়ে আছে। যদিও আমি শারীরিকভাবে বেড়ে উঠতে পারিনি, কিন্তু আমি চাই একজন প্রাপ্তবয়স্কের মতো আচরণ করতে। আর আমার যা ভালো লাগে, আমি তা-ই করি।’

‘আই অ্যাম শনা রে’র প্রিমিয়ার হয় গত বছরের ১১ জানুয়ারি। টিএলসি ওই ডকুমেন্টারিতে শনার দৈনন্দিন জীবনযাত্রাকে তুলে ধরে। তারা একটি মেয়ের মতো দেখা একজন প্রাপ্তবয়স্কের বাঁচার চেষ্টার ওপর আলো ফেলে। বারে মদ্যপান করা, ট্যাটু করা বা ব্লাইন্ড ডেটে যাওয়ার মতো বিষয়গুলো তাঁর জন্য বেশ চ্যালেঞ্জিং—এমনটাই দেখানো হয় সেই তথ্যচিত্রে। সূত্র: জেরুজালেম পোস্ট।

শেয়ার করুনঃ

সর্বশেষ

বিজ্ঞাপন

আর্কাইভ

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০১১১২
১৩১৪১৫১৬১৭১৮১৯
২০২১২২২৩২৪২৫২৬
২৭২৮২৯৩০৩১  

All Rights Reserved ©2024