আনারস জিতলে আমার কষ্ট সার্থক

মো.মামুন মিয়া। পেশায় তিনি অটোরিকশাচালক। মামুনের বাড়ি কুমিল্লার চৌদ্দগ্রাম উপজেলার চিওড়া ইউনিয়নের বাটিয়ারখিল গ্রামে। চতুর্থ ধাপে আগামী ২৬ ডিসেম্বর ওই ইউনিয়নে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হচ্ছে। সেখানে আনারস প্রতীক নিয়ে স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে লড়ছেন আবু তাহের। অটোরিকশাচালক মামুন ওই প্রার্থীকে আগে থেকেই ভালোবাসেন, পছন্দ করেন।

পছন্দের প্রার্থীর প্রচারে ভিন্ন মাত্রা যোগ করতে ভিন্ন কৌশল নিয়েছেন মামুন। এ জন্য আনারস প্রতীকের আদলে সাজিয়ে নিয়েছেন নিজের মাথা। যদিও মামুনের দাবি, নিজের পছন্দের প্রার্থীর প্রতি ভালোবাসার নিদর্শনস্বরূপ নিজের মাথার চুল কেটে আনারস তৈরি করেছেন তিনি।

চিওড়া ইউনিয়নের বাসিন্দা আবুল বাশার মানিক বলেন, মামুন তার নতুন চেহারা নিয়ে প্রতিনিয়ত পছন্দের প্রার্থীর জন্য প্রচারণা চালাচ্ছেন। বিষয়টি এখন ওই এলাকায় আলোচনার কেন্দ্রবিন্দুতে পরিণত হয়েছে।

মামুন মিয়া বলেন, ১০ বছর ধরে সিএনজি চালিয়ে জীবিকা নির্বাহ করি। আমার নেতা আবু তাহের চেয়ারম্যান ভালো মানুষ। তিনি দুইবার ইউনিয়নের চেয়ারম্যান ছিলেন। মানুষের জন্য কাজ করেছেন। এবারও আনারস মার্কা নিয়ে নির্বাচনে লড়ছেন তিনি।

আমি তাহের চেয়ারম্যানকে ভালোবাসি, এ জন্য মাথাটাকে আনারস বানিয়েছি। মাথার চুলকে আনারসে রূপ দিতে আমার ১২ শ টাকা খরচ হয়েছে। এই টাকা আমি নিজেই খরচ করেছি। কারণ মানুষ পছন্দের প্রার্থীর জন্য কত কিছুই তো করে। আমি তো শুধু নিজের মাথাটাই সাজিয়ে নিয়েছি। প্রার্থী বিজয়ী হলেই আমার এই কষ্ট সার্থক। মামুন মিয়া আরো বলেন, চারদিকে আমার প্রার্থীর গণজোয়ার সৃষ্টি হয়েছে। সুষ্ঠু নির্বাচন হলে আমার প্রার্থীর বিজয় সময়ের ব্যাপার মাত্র।