অবুঝ মন

কবিঃ সৈয়দ ইসমাইল হোসেন

মিছে মায়ায় ডুবে রইলে
সাধের অবুঝ মন ,
ভবের প্রেমে মগ্ন হ’লে
চিনলে না মূলধন ।

আসল বাড়ির আশা ছাড়ি
কেমনে আছো পড়ে ,
মৃত্যুর পর আসল বাড়ি
দেখো চিন্তা করে ।

কবরের ওই অন্ধকারে
কেউ রবে না সাথে ?
কিসের জোরে পেরিয়ে যাবি
কঠিন পুলসিরাতে ?

দালানকোঠা সোনার বাড়ি
থাকবে ধরায় পড়ে ,
যেতে হবে সবই ছাড়ি
মাটির আসল ঘরে ।

সময়মতো বুঝলি নারে
সাধের অবুঝ মন ,
হিংসা গর্ব অহংকারে
কাটলো রে জীবন ।

করলিরে পাপ জেনেশুনে
শয়তান-চালে পরে ,
হিসাব নিবেন গুনে গুনে
আল্লাহ রোজহাসরে ।

মিছে মায়ার এ সংসারে
দেখো ডানে-বামে ,
কবরেতে বাহাদুরি
লাগবে কোনো কামে?

মিথ্যার শক্তি মিথ্যার জয়
হবেরে ছাড় খার ,
দীর্ঘস্থায়ী হবে নাকো
এসব অনাচার ।

মনের সকল আঁধারটারে
মুছিয়া ছাপ করো ,
হৃদয়টাকে ধুয়েমুছে
পুণ্যের পথ ধরো ।

বুঝে করো না বোঝার ভান
হায়রে অবুঝ মন ,
তাড়াতাড়ি হও সাবধান
হয়ে সচেতন

ছাড়ো সকল লোভ-লালসা
লোভ তো ভালো নয় ,
চাও আল্লাহর ভালবাসা
যিনি দয়াময়।

নামি-দামি বীর পালোয়ান
কোথায় আজি তারা ?
কেউ কবরে কেউ শ্মশানে
কেউ পাবে না ছাড়া ।

হায়রে প্রিয় অবুঝ মনটা
সব অন্যায় ছাড়ো ,,
ন্যায়ের পথে করো গমন
কেউ নয় তো কারো ।

করো মানব হৃদয়টা জয়
হারামটা না খেয়ে
মনে রাখো মরণের ভয়
ন্যায়ের পথে যেয়ে।

অন্যের দোষ খোঁজার আগে
নিজের দোষটা খোঁজো ,
তোমার ভালোর অগ্রভাগে
পরের ভালো বোঝো ।

অসত্যের পথ ছেড়ে দিয়ে
সত্য পথে চলো ,
মিথ্যা কথা ছেড়ে দিয়ে
সত্য কথা বলো।

এস.আই. জনি গভীরভাবে
ভাবে সারাক্ষণ ,
পরকালে কিসে মুক্তি
পাবে অবুঝ মন ???