সুদ – ঘুষ

কবিঃ এস. আই. জনি

সুদ আর ঘুষে ভরে গেছে
সুন্দর এই দেশটা ,
অভিশাপ মুক্ত কবে হবে
জানিনা তার শেষটা ।

জেনে ও শুনে মানুষজনে
খাচ্ছে সবে সুদ ঘুষ ,
পাপের ভয় কেউ করেনা
কারো কোনো নাই হুশ ।

পাঁচ ওয়াক্ত নামাজ পড়ে
অথচ সে সুদ খায় ,
জানিনা আমি আল্লায় তারে
রাখবে কোন জাগায় ?

ঘুষ ছাড়া চাকরি হয়না
এদেশেতে আজকাল ,
ঘুষের টাকায় বাড়ি করে
কেউ হয় লালে লাল ।

সুদের টাকা দিতে না পেরে
কেউ হচ্ছে ভিটে ছাড়া ,
সুদ ঘুষের খপ্পরে পরে
জনগণে দিশেহারা ।

সুদখোর লোকের উপরে
আল্লার লান্নত থাকে ,
মৃত্যুর পরে সুদের দায়ে
জাহান্নামে দিবে তাকে ।

ঘুষখোরের পেটের মধ্যে
সাপ বিচ্ছু জন্ম নিবে ,
সাপ বিচ্ছুর দংশনে সে
কষ্টে চিৎকার দিবে ।

সুদ ঘুষ দেওয়া নেওয়া
মস্ত বড়ো অপরাধ ,
মৃত্যুর পরে বুঝবে সবে
সুদ ঘুষে কতো স্বাদ ?

লেবাসধারী কিছু হুজুর
সুদ ঘুষ খায় তারা ,
কোনো যুক্তিতে মুক্তি পাবেনা
পরকালে পুণ্য ছাড়া ।

সুদখোর আর ঘুষখোর
হও সবে হুশিয়ার ,
পরকালের শেষবিচারে
হবে কিন্তু গ্রেফতার ।

সুদ ঘুষের ব্যারাম থেকে
এ জাতি বাঁচতে চায় ,
আল্লার কথা অমান্য করে
পাপ করো কি আশায় ?

বিবেকে কেনো নাড়া দেয়না
কবে আর হবে হুশ ?
এস.আই. জনির মিনতি
ছাড়ো সবে সুদ ঘুষ ।